ফিচার

জীবন যুদ্ধে এগিয়ে যেতে চায় প্রতিবন্ধী বকুল

এস এইচ সাইফ,নাটোর থেকে ফিরে্‌,: একদিকে শারীরিক প্রতিবন্ধীতা অন্যদিকে সামাজিক প্রতিকূলতা, সব বাধা জয় করে এগিয়ে চলেছে বকুল কুমার বিশ্বাস। বয়স ৩৫ পার। বাড়ি তার নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার নগর ইউনিয়নের পাঁচবাড়ীয়া গ্রামে। বকুলের উচ্চতা তিন ফুট চার ইঞ্চি। শারীরিক প্রতিবন্ধী বকুল উপজেলা সদর বনপাড়া সহ এলাকার সবার কাছে পরিচিত জোকার বকুল হিসেবে। চা বিক্রেতা বাবা গৌরপদ বিশ্বাসের কনিষ্টতম ও নবম পুত্র বকুল। ৩ শতাংশ আয়তনের ভিটামাটির মালিক তার বাবা। আবাদি জমি নেই তার। সংসারে দারিদ্র্যর ছোঁয়া থাকলেও বেশ আদরেই বেড়ে উঠেছিল বকুল। একটু বয়স বাড়ার পর থেকে তাকে ঘিরে পরিবারের আনন্দ ম্লান হতে থাকে। আত্মীয়-স্বজন সহ আশেপাশে তার সমবয়সী সবারই ...

Read More »

মানুষ মানুষের জন্য

মুহম্মদ জাফর ইকবাল গত বেশ কিছুদিন হলো পত্র-পত্রিকার পৃষ্ঠার দিকে আর তাকানো যাচ্ছে না। মানুষের নিষ্ঠুরতার কথা পড়তে ভালো লাগে না। এ রকম খবর পত্র-পত্রিকায় ছাপা হলে নিজের অজান্তেই চোখ ফিরিয়ে নেই। একাত্তর সালে আমাদের এরকম নিষ্ঠুরতার ভেতর দিয়ে যেতে হয়েছিল। তখন চোখ ফিরিয়ে নেওয়ার কোনো উপায় ছিল না, আমাদের চারপাশেই সেই ঘটনাগুলো ঘটেছিল। মনে হচ্ছে সেই দিনগুলো বুঝি আবার ফিরে এসেছে। আমি না চাইলেও আবার সে রকম ঘটনাগুলো দেখতে হচ্ছে, শুনতে হচ্ছে। একজন মা তার মৃত সন্তানের মুখের সঙ্গে মুখ লাগিয়ে শূন্য দৃষ্টিতে তাকিয়ে আছেন -এ রকম দৃশ্য সহ্য করা কঠিন। কিন্তু এখন আমরা সবাই জানি খবরের কাগজের এ ...

Read More »

আদালতের রায় কতটা রুখতে পেরেছে ভারতের উগ্র হিন্দুদের?

বর্তমান দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে বেশি আলোচিত ইস্যু হল মিয়ানমারের রোহিঙ্গা সংকট। অথচ কিছুদিন আগেও আলোচনার শীর্ষে ছিল ভারতের গো হত্যার নামে মুসলমান হত্যা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এবং গণমাধ্যমের প্রচারিত রোহিঙ্গা ইস্যুটি এতই প্রাধান্য পেয়েছে যে মানুষ ভারতের তান্ডবকে ভুলতে বসেছে। কিন্তু ভারতের উগ্র হিন্দুরা কি ভুলেছে? গত ২৫ আগস্ট ভারতের উচ্চ আদালত কর্তৃক রায়ে বিচারপতি মানুষের ব্যাক্তিগত গোপনীয়তাকে মৌলিক অধিকার হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছেন এবং প্রতিটি জেলায় একজন করে পুলিশ অফিসার ( যার কাজ হচ্ছে গো হত্যাকে কেন্দ্র করে গুণ্ডামি বন্ধ করা) নিয়োগ দেওয়ার জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের প্রতি নির্দেশনা দিয়েছেন। উক্ত রায়ের ফলে গো হত্যা ইস্যু নিয়ে সকল বিতর্ক নতুন মাত্রা ...

Read More »

সেলফিতে পাউট করেন কেন!

নিউজ ডেস্ক : ফেসবুকের প্রধান অনুষঙ্গ সেলফি। দেখা যায় নারীরা তাদের কোন কোন মুহূর্ত বা অবস্থান জানাতে বিশেষ মুখভঙ্গি করে সেলফি তোলেন। এর কারণ কী? সামাজিক বিদ্রোহ, নাকি সমাজ-সংসারের প্রতি ভেংচি? নাকি এর কোনটিই নয়! কেউ কি বলতে পারেন? বাংলাদেশে ফেসবুকের জনপ্রিয়তার সঙ্গে সঙ্গে বাড়ছে সেলফি তোলার প্রতিযোগিতাও। তাই ফেসবুকে সেলফির এই মুখভঙ্গি দেখে অনেকেই হয়তো বিরক্ত। কিন্তু কেউ ব্যাপারটি নিয়ে মাথা ঘামাচ্ছেন না! এই বিশেষ মুখভঙ্গিটির কেতাবি নাম ‘পাউট’। মেরিয়াম-ওয়েবস্টার ডিকশনারির মতে— ‘to show displeasure by thrusting out the lips’। কিন্তু সেলফি তুলতে কেন এমন মুখভঙ্গি করতে হচ্ছে, সেটি ভাবার বিষয়। কী এমন ডিসপ্লেজার বা অসন্তোষের ঘটনা ঘটল যে, ...

Read More »

কয়েকটি মন খারাপ করা ঘটনা

মুহম্মদ জাফর ইকবাল : আগস্ট মাসটি মনে হয় সত্যিই বাংলাদেশের জন্যে অশুভ একটা মাস। কীভাবে কীভাবে জানি এই মাসটিতে শুধু মন খারাপ করা ঘটনা ঘটতে থাকে। দুঃসময় নিশ্চয়ই একসময় কেটে যাবে তারপরও যখন ঠিক এই সময়টির ভেতর দিয়ে যেতে হয় তখন মন খারাপ হয়ে যায়। শুরু হয়েছে বন্যা দিয়ে। বিস্তীর্ণ এলাকা বন্যার পানিতে ডুবে গেল, মাঠে-ঘাটে পানি, স্কুলে পানি, বাড়ির ভেতর পানি। আমরা যারা পুরো সময়টা শুকনো মাটিতে কাটিয়েছি তারা নিশ্চয়ই কল্পনাও করতে পারি না পানিতে ডুবে যাওয়া এলাকায় দিন রাত চব্বিশ ঘন্টা সময় কাটাতে কেমন লাগে। নিঃশ্বাস বন্ধ করে বসে আছি কখন বন্যার পানি পুরোপুরি নেমে যাবে, দেশের মানুষ ...

Read More »

অ্যালার্জির কারণ হতে পারে সাবান

ফিচার ডেস্কঃ সাবানে থাকে এমন কিছু উপাদান, যা থেকে অনেক সময় অ্যালার্জির কারণ হতে পারে। এর মধ্যে অন্যতম হ্যালোজেনেটেস স্যালিসিলানিলাইডস নামক এক ধরনের কেমিক্যাল। পৃথিবীর উন্নত দেশগুলোয় বহু বছর আগেই এ ধরনের কেমিক্যালের ব্যবহার নিষিদ্ধ হয়েছে। আজ থেকে ১০-১৫ বছর আগে যারা এসব কেমিক্যাল ব্যবহার করতেন, তাদের ত্বকে এখন এমন এক ধরনের অ্যালার্জি দেখা দিচ্ছে, চিকিৎসার পরিভাষায় যেটির নাম ফটোঅ্যালার্জি। এসব কেমিক্যাল ত্বক অতিমাত্রায় আলোক সংবেদনশীল করে তোলে। ফলে ত্বকে একটু রোদ লাগলেই অ্যালার্জি দেখা দিয়ে থাকে। আমাদের দেশে সাবানের মোড়কে পণ্যটির কম্পোজিশেন লেখা থাকে না। ফলে চিকিৎসকদের পক্ষে এ রোগ সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা পাওয়া অনেক সময় অসম্ভব হয়ে পড়ে ...

Read More »

অনলাইন জীবন

অনলাইন জীবন মুহম্মদ জাফর ইকবাল একটা দৃশ্য কল্পনা করা যাক। আপনি একজন বাবা কিংবা মা, আপনার ছেলেমেয়েরা বড় হয়নি, তারা স্কুল-কলেজে পড়ে। একদিন আপনি বাসায় এসেছেন, এসে দেখলেন আপনার ছেলে বা মেয়েটি টেবিলে পা তুলে গভীর মনোযোগ দিয়ে একটা সিগারেট টানছে। আপনি জিজ্ঞেস করলেন, “কী করছিস বাবা (কিংবা মা)?” আপনার ছেলে কিংবা মেয়ে হাসি হাসি মুখে বলল, “সিগারেট খাচ্ছি আম্মু (কিংবা আব্বু)?” তারপর টেবিল থেকে পা নামিয়ে বলল, “খাওয়ার পর একটা সিগারেটে টান না দিলে ভালোই লাগে না।” কথা শেষ করে সিগারেটে লম্বা টান দিয়ে তার নাক দিয়ে মুখ দিয়ে ধোঁয়া বের করল। আপনি বললেন, “ঠিক আছে বাবা (কিংবা মা) ...

Read More »

জলাবদ্ধতা নিরসনে কার্যকর উদ্যোগ নেই

মীর আবদুল আলীম:এক বিভাগের সঙ্গে আরেক বিভাগের সমন্বয়হীনতার জন্যই সামান্য বৃষ্টির পানিতে ডুবে যায় রাজধানী ঢাকা। ডুবন্ত বন্দরনগরী চট্টগ্রামের সড়কে চলে নৌকা। সামান্য বৃষ্টিতেই নগরজীবন অচল হয়ে পড়ে। জলজটের সঙ্গে নগরীতে সৃষ্টি হয় যানজটও। জলে ডুবে যায় আমাদের নগরগুলো। যখন নগর ডুবন্ত অবস্থায় থাকে; যখন নগরের কোনো কোনো সড়কে নৌকা চলে তখন সংশ্লিষ্টদের টনক নড়ে। নানা বক্তব্য আর বিভিন্ন সংস্থার মিটিংয়ের মধ্যদিয়ে কদিন বেশ সরব থাকে। সিটি করপোরেশন, ওয়াসা, গ্যাস, বিদ্যুৎ, সড়ক বিভাগ আর রাজনৈতিক বৈঠক হয় দফায় দফায়। জলাবদ্ধতা নিরসনে নানা পরিকল্পনা হয়। কি হয় তাতে? বৃষ্টি হলে বর্ষায় নগরের জল কমে না বরং ফি বছর বাড়ে পানি। চট্টগ্রাম ...

Read More »

আমি ড্রাইভার : আমার গাড়ির যাত্রী হবেন?

মীর আব্দুল আলীম:সড়ক দুর্ঘটনায় প্রতিদিন মানুষ মরছে। কেউ কিছু বলছে না। আগে পত্রিকায় ফলাও করে এ সংবাদ ছাপা হতো। এখন কোনটা ছাপে; কোনটা আবার ডাস্টবিনে স্থান পায়। ভাবটা এমন যেন কারো কোন দায় নেই। এমন বিষয়েই সেদিন আমার মেডিক্যাল পড়–য়া ছেলেটা পত্রিকা পড়ার ফাঁকে নাস্তার টেবিলে বলছিলো-‘বাবা লক্ষ করেছ দুর্ঘটনা এখন কোন বিষয় নয়। এ ব্যাপারে সবাই যেন স্বাভাবিক। অথচ হাসপাতাল গুলোতে প্রতিনিয়তই দুর্ঘটনার রোগী ভরপুর দেখছি।’ উত্তরে আমি একটি কথা বলেছিলাম- ‘একটি কাজ করতে পার? ডাক্তারির পেশার পাশাপাশি অবসর সময়ে ড্রাইভিং কর। শিক্ষিত মানুষ ড্রাইভিংয়ে এলে আমাদের দেশে সড়ক দুর্ঘটনা কমবে। এও বলেছি ড্রাইভিং বা ড্রাইভারি এদেশে মর্যাদার কোন ...

Read More »

বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মো: সফিকুর রহমান এর সংক্ষিপ্ত জীবনী

….. ফিচার ডেস্ক বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মো: সফিকুর রহমান এর সংক্ষিপ্ত জীবনীত্ব ও সফলতার কথা…. হযরত শাহজালাল (র:) ও হযরত শাহ পরাণ (র:) সহ ৩৬০ আওলিয়ার সৃতি বিজড়িত পূর্ণভূমি ও দুটি পাতা একটি কুঁড়ির দেশ বাংলার আধ্যাতিক রাজধানী এবং প্রাকৃতিক সুন্দর্যে ভরপূর সিলেট জেলার গোলাপগনজ উপজেলার ১০ নং উত্তর বাদেপাশা ইউপির ২ নং ওয়াডের খাগাইল গ্রামের এক মুসলিম সম্রান্ত পরিবারে ১৯৪৯ সালে ২৬ জানুয়ারী জন্মগ্রহন করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মো: সফিকুর রহমান। পিতার নাম মরহুম হাজী মো: জছির আলী তালুকদার, মাতার নাম মরহুমা হবিজা বিবি। জছির আলী ও হবিজা বিবির ৪ ছেলে ও ১ মেয়ে এর মধ্যে বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব ...

Read More »
Translate »